Wednesday, January 06, 2010

কালাইডোস্কোপ, গণরণসঙ্গীত ও বরাহশিকার

১.
সচলের প্রধান অ্যানিমেটর সুজন চৌধুরীর একটা বড় সমস্যা হচ্ছে, বাংলা টাইপিঙে মন্থরতা। সুজন্দা টাইপিঙে আরেকটু সড়গড় হলে সম্ভবত সচলায়তনে গল্পের ঝুলি তাঁরই সবচেয়ে বড় থাকতো।

তবে লেখার খামতি সুজন্দা এঁকে পুষিয়ে দ্যান অহরহই। সচলের একদম শুরু থেকেই তাঁকে জ্বালিয়ে অতিষ্ঠ করছি নানা আঁকাআঁকির আবদার করে। প্রতিদিনের ব্যস্ততা থেকে একটু সময় বের করে সুজন্দা সেই আবদারের একটা বড় অংশ পূরণ করে আসছেন।

সুজন চৌধুরী শুধু আমার কালাতো ভাই-ই নন (আমরা দু'জনেই ঘোর কৃষ্ণবর্ণ), আরো নানা ব্যাপারে তাঁর সাথে আমার ঐকমত্য আছে বলে অনুভব করেছি। তাই যখন সুজন্দাকে প্রস্তাব দিলাম, একটা ছোট্ট অ্যানিমেশন হাউস গড়ে তুললে কেমন হয়, সুজন্দা রাজি হতে সময় নেননি। অ্যানিমেটর হিসেবে তাঁর অভিজ্ঞতা এক দশকেরও বেশি, তিনি রাজি হবেন না তো কে হবেন?

কী নাম হবে সেই অ্যানিমেশন জোটের, যারা বানাবে নতুন ধারার বাংলা অ্যানিমেশন, যারা নতুন রঙের গল্প আর নতুন গল্পের রং যোগ করবে এই অনিশ্চিত, নতুন মাধ্যমে? অনেক তর্ক শেষে স্থির হলো, কালাইডোস্কোপ। দুই কালা-র ক্যালেইডোস্কোপ।

কালাইডোস্কোপ নিয়ে আমি খুব উত্তেজিত, সুজনদা আমার চেয়ে দুনিয়া বেশি দেখেছেন বলে একটু কম উত্তেজিত। আমরা চাই, বাংলাদেশ ও বাংলাদেশের বাইরে বাংলাভাষী টেলিভিশন সম্প্রচার শিল্পের জন্যে ছোটো ছোটো সবাক অ্যানিমেটেড ফিল্মস আর অ্যানিম্যাটিক তৈরি করতে, পেশাদারিত্বের সাথে, বাণিজ্যিক ভিত্তিতে। কতটা সফল হতে পারবো আমরা, জানি না, কিন্তু স্বপ্নভূক হয়েই তো বেঁচে আছি?

সচলের সবার পরামর্শ কামনা করছি এ ব্যাপারে। হুজুগ নয়, হঠাৎ মাথায় চাপা ভূত নয়, আমরা সিরিয়াস, একটা কিছু করতে চাই।


২.
স্বাধীনতার ৩৮ বছরে যুদ্ধাপরাধী রাজাকার-আলবদর-আলশামসদের বিরুদ্ধে কয়টা গান লেখা হয়েছে? কেউ কি একটু বলবেন দুয়েকটা গানের কলি? গেয়ে শোনাবেন? লিঙ্ক যোগাতে পারবেন?

আমার গান নিয়ে জ্ঞান অপ্রতুল, কিন্তু কান বলছে, মন বলছে, সেরকম কোনো গান আমরা লিখে উঠতে পারিনি। মুক্তিযুদ্ধের পক্ষে অনেক উদ্দীপনাযোগানিয়া গান আছে, স্বৈরাচারের বিরুদ্ধে গান আছে, কিন্তু এই যে বরাহশাবকের দল, এদের বিরুদ্ধে ঘৃণা ছড়ানোর জন্যে কোনো গান কি লিখেছেন কোনো গীতিকার? কোনো সুরকার সুর করেছেন? কোনো শিল্পী গেয়েছেন?

বেশি না, এমন একটা গান আমাকে দিন?

এমনি করে চেয়েছিলাম অনেকের কাছে, তাঁরা দিতে পারেননি।

আমি বাধ্য হয়ে একটা গান নিজে বেঁধেছি। এটা রাজাকারদের বিরুদ্ধে সক্রিয়তার মহাসমুদ্রে আমার এক ফোঁটা শিশির। গানটা নিয়ে আমি নিজে উৎফুল্ল, সারাদিন লুপে বাজিয়ে ফুল ভলিউমে শুনি আর নাচি।

গানটার নাম বরাহশিকার!

যারা আমার ফেসবুকবন্ধু, তাঁরা নিশ্চয়ই লক্ষ্য করে থাকবেন আমি বরাহশিকার নিয়ে স্ট্যাটাস দিয়ে আসছি কয়েক সপ্তাহ ধরে। কয়েকজন বন্ধুকে পূর্ণাঙ্গ গানটা শুনিয়েছি, কয়েকজনকে আংশিক, এবং উল্লাসের সাথে জেনেছি, গানটি নিয়ে আমার উত্তেজনা তাঁদের মাঝেও সংক্রামিত হয়েছে। গানটার প্রথম স্তবকের অডিও এখন যোগ করলাম এই পোস্টে। ফুল ভলিউমে শুনে দেখুন।
.
.

Get this widget Track details eSnips Social DNA

.
.

এই গানটির সম্পূর্ণ সংস্করণ, ৩ মিনিট ৩৬ সেকেন্ডের অডিও ফাইলটি জানুয়ারির ১ তারিখে সচলে অবমুক্ত করা হবে। এটিকে আমরা সারা পৃথিবীতে ছড়িয়ে দিতে চাই। এটি হোক নতুন বছরে আমাদের প্রতিজ্ঞা। এই গান গাইতে গাইতে আমরা দলবেঁধে বইমেলায় যাবো, দলবেঁধে গাইতে গাইতে ফিরবো। এটি হোক আমাদের গণরণসঙ্গীত!



৩.
গানটা নেহায়েত গান হিসেবে মাথায় আসেনি। এর পেছনে একটা দীর্ঘ গল্প আছে, সেটা জানুয়ারির ১ তারিখে বলবো। গানটার নেপথ্যে যে গল্প আছে, সেই গল্পের ওপর ভিত্তি করে সুজনদা একটা অ্যানিম্যাটিক তৈরি করছেন কয়েক সপ্তাহ ধরে। আমাদের ইচ্ছা ছিলো বিজয় দিবসে আমরা এটা শেষ করে সচলে আপলোড করবো, কিন্তু সময়ে কুলায়নি। তাই একটা ট্রেলার যোগ করছি আমাদের অ্যানিমেটেড গীতিনাট্যের, যেটির নাম "বরাহশিকার!" এটি একটি লো-রেজ সংস্করণ, আকার ছোটো রাখার জন্যে অনেক কিছুই যোগ করা হয়নি।

আপনাদের প্রতিক্রিয়ার আশায় রইলাম আমরা।

ভিডিওটি স্বয়ংক্রিয়ভাবে চলতে থাকে। রাইট মাউজ ক্লিক করে "প্লে" আর "লুপ" নিয়ন্ত্রণ করতে পারবেন।



.
.
.





আপাতত কালাইডোস্কোপের জন্যে একটা পেইজ খোলা হয়েছে ফেসবুকে। ফ্যান কথাটা আমার পছন্দ নয়, ফেসবুক পেইজটিতে সহযাত্রী হিসেবে আপনারা সকলে আমন্ত্রিত। ধন্যবাদ।




ফলোআপঃ সম্পূর্ণ গান

No comments:

Post a Comment

রয়েসয়েব্লগে মন্তব্য রেখে যাবার জন্যে ধন্যবাদ। আপনার মন্তব্য মডারেশন প্রক্রিয়ার ভেতর দিয়ে যাবে। এর পীড়া আপনার সাথে আমিও ভাগ করে নিলাম।