Sunday, March 08, 2009

পিলখানা হত্যাকান্ডের তদন্ত

পিলখানা হত্যাকান্ডের তদন্ত শুরু হয়েছে। পুলিশের অপরাধ অনুসন্ধান বিভাগের [সিআইডি] কর্মকর্তা আব্দুল কাহহার আকন্দের নেতৃত্বে একটি দল জিজ্ঞাসাবাদ করছে বিডিআরের আটক জওয়ান ও অফিসারদের। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সভাপতিত্বে একটি তদন্ত কমিটির পাশাপাশি সেনাবাহিনীর কোয়ার্টার মাস্টার জেনারেলের নেতৃত্বে একটি সেনা তদন্ত দল অনুসন্ধান করছে।

আমরা জানি না এই অনুসন্ধানের ফলাফল জনসমক্ষে প্রকাশিত হবে কি না। কিন্তু এই হত্যাকান্ড, পরবর্তী রাজনৈতিক পদক্ষেপ, সামরিক বাহিনীতে এর প্রতিক্রিয়া নিয়ে দেশে এতো বেশি উৎকণ্ঠা চলমান যে জনসাধারণকে এ সম্পর্কে অবহিত করা সরকারের অবশ্যকর্তব্য। এর আগেও আমরা দেখেছি, আওয়ামী লীগের জনসভায় গ্রেনেড ও গুলি হামলা এবং বাংলা ভাই তথা জেএমবির কার্যক্রমের ব্যাপারে তৎকালীন প্রশাসন অশালীন রকমের অবহেলা প্রদর্শন ও সক্রিয় ধামাচাপা অ্যালগরিদম অনুসরণ করেছে। দুটি ঘটনাকেই তৎকালীন প্রশাসন বিরোধী রাজনৈতিক দলের ওপর চাপিয়ে দিতে গিয়ে ব্যর্থ হয়েছে, এবং পরবর্তীতে তাদের সেই কীর্তি প্রকাশিত হয়েছে। তাই এবার রাষ্ট্রের বিরুদ্ধে পরিচালিত এই গুপ্তহামলার তদন্ত ও বিচার হওয়া উচিত স্বচ্ছ, যাতে এ নিয়ে কোন প্রশ্ন না ওঠে।

আমরা তারপরও খবরের কাগজে নানা সংবাদ পড়ে চমকে উঠছি। আমরা জানতে পারছি, পিলখানা হত্যাকান্ডের তদন্তভার দেয়া হয়েছিলো আবদুল্লাহেল বাকী নামক এক উচ্চপদস্থ পুলিশ কর্তাকে, যিনি চট্টগ্রামে আটক দশ ট্রাক অস্ত্র মামলার অনুসন্ধানকে অত্যন্ত সক্রিয়ভাবে ভুল পথে চালিত করেছেন বলে অভিযোগ রয়েছে। পত্রিকায় এ নিয়ে প্রতিবেদন প্রকাশিত হওয়ার পর শুধু জনাব বাকীকেই এই দায়িত্ব থেকে সরানো হয়নি, আজ পড়লাম, স্বরাষ্ট্রসচিব পদে আসীন যিনি ছিলেন, তাকে সরিয়ে অন্য একজনকে এ দায়িত্ব দেয়া হয়েছে।

স্বাভাবিকভাবেই আমাদের মনে প্রশ্ন জাগে, কিভাবে দেশের সার্বভৌমত্বের ওপর আঘাত হেনেছে, এমন একটি মামলায় অতিশয় গুরুতর অভিযোগবিদ্ধ একজন পুলিশ অফিসারকে পুনরায় পিলখানা হত্যাকান্ড মামলার মতো একটি স্পর্শকাতর বিষয়ে অনুসন্ধানের দায়িত্ব দেয়া হয়? স্বয়ং পুলিশের আইজিপি যেখানে ব্যক্তিগতভাবে এই হত্যাকান্ডে ক্ষতিগ্রস্ত [তাঁর জামাতা ক্যাপ্টেন মাজহারুল হায়দার সেদিন নিহত হয়েছিলেন], সেখানে কিভাবে পুলিশের একজন প্রশ্নবিদ্ধ কর্তা তদন্তের ভার পান?

পিলখানা হত্যাকান্ডের সুচারু তদন্ত চাই, বিচার চাই, অপরাধীদের সংশ্লিষ্ট আইনে সর্বোচ্চ শাস্তি চাই। এই গোটা প্রক্রিয়াটি হোক স্বচ্ছ ও দৃষ্টান্তের যোগ্য।

[]

No comments:

Post a Comment

রয়েসয়েব্লগে মন্তব্য রেখে যাবার জন্যে ধন্যবাদ। আপনার মন্তব্য মডারেশন প্রক্রিয়ার ভেতর দিয়ে যাবে। এর পীড়া আপনার সাথে আমিও ভাগ করে নিলাম।