Saturday, July 14, 2007

পারভেজ মুশাররফ কি ফিল্ড মার্শাল হতে যাচ্ছেন?



যুদ্ধে নেতৃত্ব দিয়ে জয়ী হলে একজন আস্ত জেনারেল ফিল্ড মার্শাল হতে পারেন। উদাহরণ আছে, ফিল্ড মার্শাল মন্টগোমেরি, ফিল্ড মার্শাল এরইউন রোমেল, ফিল্ড মার্শাল স্যাম মানেক'শ। জেনারেল আইয়ুব খান ভারতের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করে ফিল্ড মার্শাল খেতাব গ্রহণ করেছিলেন। '৬৫ সালে রান অফ কাচের সেই যুদ্ধে তিনি জয়ী হয়েছিলেন নাকি হেরে গিয়েছিলেন তা নিয়ে অনেক তক্কো হয়েছে। কেউ বলেছে, কচ্ছকে মুক্ত করতে গিয়ে পাকিস্তান মুক্তকচ্ছ হয়েছে। আবার কেউ বলেছে, কচ্ছকে মুক্ত করতে এসে ভারত মুক্তকচ্ছ হয়েছে। এই গোলযোগে কান না দিয়ে আইয়ুব খান মেঠো মার্শাল হয়ে উঠেছিলেন আপনমনে।

পাকিস্তানের এককালের প্রধান বিচারপতি রুস্তম কায়ানী বলেছিলেন, পাকিস্তানের সেনাবাহিনী যুদ্ধ করে অন্যদেশ জয় করতে পারেনি, কিন্তু নিজের দেশটাকে দুটি বারের জন্য দখল করে নিয়েছে। হয়তো নিজের দেশের গণতন্ত্রকামী জনতার বিরুদ্ধে "যুদ্ধ" জয়ের পুলকেই আইয়ুব মার্শালপনার দিকে গিয়েছিলেন। কে জানে?

তবে নিজের রাজধানীর অদূরে এক মসজিদ-দুর্গের বিরুদ্ধে লড়াই করে জয়ী হয়েছেন জেনারেল পারভেজ মুশাররফ। কিভাবে দুই মোল্লা ভাই প্রবলপরাক্রান্ত এই জেনারেলের বিরুদ্ধে অস্ত্রধারণের স্পর্ধা অর্জন করলো, তার বিশদ ইতিহাস আমি জানি না, শুধু জানি, সেই চরমপন্থী দলের এক মোল্লা জেনারেল বোরখার আড়ালে পালাতে গিয়ে ধরা পড়েছেন, আরেকজন "ক্রসফায়ারে" নিহত হয়েছেন। প্রতিদ্বন্দ্বী জেনারেলরা কাগজ-রেডিও-টিভিতে কয়েক মাস ধরেই মহড়া নিচ্ছিলো, বকাবকিও করেছিলো মুশাররফকে বিস্তর, কিন্তু মুশাররফ বোধহয় ভাবেননি, তারা অস্ত্রধারণের পথে এগোবে।

ইতিহাস সাক্ষী থাকবে, প্রথম লাল মসজিদের যুদ্ধে জেনারেল মুশাররফ জয়ী হয়েছেন। তিনি যদি ফিল্ড মার্শাল হবার জন্য প্রস্তুতি গ্রহণ করেন, কারো আপত্তির সুযোগ হয়তো থাকবে না।


No comments:

Post a Comment

রয়েসয়েব্লগে মন্তব্য রেখে যাবার জন্যে ধন্যবাদ। আপনার মন্তব্য মডারেশন প্রক্রিয়ার ভেতর দিয়ে যাবে। এর পীড়া আপনার সাথে আমিও ভাগ করে নিলাম।